• ঢাকা
  • সোমবার, ১৭ Jun ২০২৪, ০৪:২৮ পূর্বাহ্ন

মালদ্বীপ হাই কমিশনে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালিত


প্রকাশের সময় : মার্চ ২৬, ২০২৩, ৩:০৩ অপরাহ্ন / ৮৫
মালদ্বীপ হাই কমিশনে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালিত

মোঃ আবদুল্লাহ কাদের, মালদ্বীপঃ যথাযোগ্য মর্যাদা ও ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ হাই কমিশন, মালদ্বীপ কর্তৃক ৫২তম মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস ২০২৩ উদযাপন করা হয়, সকালে দিবস উপলক্ষে মালদ্বীপে নিযুক্ত বাংলাদেশ হাইকমিশনার কর্তৃক আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে দিনের কর্মসূচির শুভ সূচনা করা হয়।অতঃপর আলোচনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মালদ্বীপে নিযুক্ত বাংলাদেশ হাই কমিশনার রিয়ার অ্যাডমিরাল এস এম আবুল কালাম আজাদ। শুরুতেই পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করেন মাওলানা মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম। এর পর জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয় এবং দিবসটি উপলক্ষে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এবং পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর প্রেরিত বানী পাঠ করে শোনানো হয়। বানী সমূহ পাঠ করেন যথাক্রমে চন্দন কুমার সাহা, তৃতীয় সচিব, মিজ শিরিন ফারজানা, প্রশাসনিক কর্মকর্তা,মোহাম্মদ ময়নাল হোসেন, কনস্যুলার সহকারী ও মোহাম্মদ আল মামুন পাঠান, কল্যাণ সহকারী। মহান স্বাধীনতা ও মুক্তি যুদ্ধের উপর ভিত্তি করে নির্মিত একটি ভিডিও চিত্র প্রদর্শন করা হয়।

উল্লেখ্য বাংলাদেশ হাই কমিশনের প্রথম সচিব ও দূতালয় প্রধান মোঃ সোহেল পারভেজ স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন। প্রবাসী বাংলাদেশীদের পক্ষ থেকে বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও সিআইপি আলহাজ্ব সোহেল রানা এবং বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী মোহাম্মদ দুলাল হোসেন বক্তব্য প্রদান করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ হাই কমিশনার এস এম আবুল কালাম আজাদ বলেন বাঙ্গালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, জাতীয় চার নেতা ও বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং বীরাঙ্গনা মা-বোনদের অপরিসীম ত্যাগ ও ভূমিকার কথা শ্রদ্ধার্ঘ্য চিত্তে স্মরণ করেন । জাতির পিতার সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিভিন্ন উন্নয়ন পরিকল্পনা এবং দেশের ক্রমবর্ধমান অগ্রগতি ও সমৃদ্ধিতে তাঁর ভূমিকার কথা উল্লেখ করেন। তিনি স্বাধীনতার সপক্ষে তৎকালীন প্রবাসীদের জনমত গঠনের বিষয় স্মরণ করেন। মালদ্বীপ প্রবাসী সকল বাংলাদেশীদের শুভেচ্ছা জ্ঞাপন করেন। সবশেষে তিনি দেশের উন্নয়নে ও ২০৪১ সালে স্মার্ট ও উন্নত বাংলাদেশ গঠনে সকলকে যার যার অবস্থান থেকে কাজ করার আহ্বান জানান।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট প্রবাসী বাংলাদেশি ব্যবসায়ী এবং বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার উল্লেখযোগ্য সংখ্যক প্রবাসি বাংলাদেশী ব্যক্তিবর্গ ও হাইকমিশনের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।