• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৩:৩০ পূর্বাহ্ন

লক্ষ্মীপুরে তালাবদ্ধ ঘরে বৃদ্ধ দম্পতির লাশ, পুলিশ বলছে হত্যা


প্রকাশের সময় : অক্টোবর ১৮, ২০২২, ১২:৫৭ অপরাহ্ন / ১৮
লক্ষ্মীপুরে তালাবদ্ধ ঘরে বৃদ্ধ দম্পতির লাশ, পুলিশ বলছে হত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক,লক্ষ্মীপুর: লক্ষ্মীপুরে ঘরের তালা ভেঙে বৃদ্ধ দম্পতির অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। সোমবার (১৭ অক্টোবর) রাত ৯টায় সদর উপজেলার শাকচর ইউনিয়নের এক নম্বর শাকচর গ্রাম থেকে লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহতরা হলেন-শাকচর গ্রামের ছৈই মিঝি বাড়ির বাসিন্দা আবু ছিদ্দিক (৭৩) ও তার স্ত্রী আতরের নেছা (৬৫)। তাদের কোনও সন্তান ছিল না। তবে একটি পালিত সন্তান রয়েছে বলে জানা গেছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, স্থানীয় শাকচর গ্রামের প্রবাস ফেরত ছিদ্দিক ও তার স্ত্রী দীর্ঘদিন থেকে ছৈমিজি বাড়ির একতলা বিল্ডিংয়ে বসবাস করতেন। প্রবাস থেকে ফিরে পৈত্রিক সম্পত্তি ছাড়াও কিছু সম্পত্তি ক্রয় করেন ছিদ্দিক। কিন্তু নিঃসন্তান থাকার কারণে এ দম্পতি আব্দুর রহিম শাহজাহান নামে একজনকে দত্তক নেন। সম্প্রতি সন্তানের সঙ্গে পারিবারিক বিরোধ (জমি জমা সংক্রান্ত) দেখা দেয়। পালক সন্তান স্ত্রীকে নিয়ে লক্ষ্মীপুর শহরে শ্বশুরবাড়িতে বসবাস করছেন। সম্প্রতি পৈত্রিক সম্পত্তি ভাইদের কাছে বিক্রি করার কথা চলছিল ছিদ্দিকের।

ভাইদের সঙ্গে গত শুক্রবার (১৪ অক্টোবর) কথা এ নিয়ে হয় ছিদ্দিকের। এমন প্রেক্ষাপটে তাদের বাড়িতে খোঁজ করতে এসে ঘর তালাবদ্ধ অবস্থায় দেখেন। কোনো সাড়া শব্দ না পেয়ে স্বজনরা জানালা দিয়ে দেখেন তাদের হাত কাপড়ে মোড়ানো এবং পঁচা গন্ধ আসছে জানালা দিয়ে। খবর পেয়ে পুলিশ সুপারসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে তালা ভেঙে তাদের মরদেহ উদ্ধার করেন।

পালক ছেলে মো. শাহজাহান জানায়, তিনি সবসময় লক্ষ্মীপুর শহরে নিজের শ্বশুরবাড়িতে থাকেন। গত কয়েকদিন থেকে ঘটনা জানাজানি হওয়া পর্যন্তও তিনি ওই বাড়িতে ছিলেন। খবর পেয়ে রাতে তিনি এ বাড়িতে ছুটে আসেন।

স্থানীয় শাকচর ইউপি চেয়ারমান মাহফুজুর রহমান জানান, পুলিশ এসে তালা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে। তাদের শয়ন কক্ষে আলমারি খোলা বিক্ষিপ্ত অবস্থায় ছিল। জামাকাপড় এলোমেলো অবস্থায় পড়ে আছে। মরদেহগুলো খাটের ওপর ছড়িয়ে রয়েছে। এই দম্পতিকে কেউ হত্যা করেছে। কিছুদিন পূর্বে নিহত নারী জমি সংক্রান্ত বিরোধের অভিযোগ নিয়ে পরিষদে গিয়েছিল, আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলা হয়েছে জানিয়ে এ ঘটনাকে মর্মান্তিক উল্লেখ করে বিচার দাবি করেন তিনি।

পুলিশ সুপার মো. মাহফুজ্জামান আশরাফ গণমাধ্যমকর্মীদের জানান, স্বামী-স্ত্রীকে দুর্বৃত্তরা শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে। একতলা বিল্ডিং এর ছাদের সিঁড়ির দরজা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে দুর্বৃত্তরা। ঘটনাটি রহস্যজনক। ঘটনার রহস্য উদঘাটন ও জড়িতদের চিহ্নিত করতে পুলিশের তৎপরতা শুরু হয়েছে। পুলিশ ও সিআইডি একসঙ্গে ঘটনার তদন্তে নেমেছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহগুলো হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।