• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:১১ পূর্বাহ্ন

লক্ষীপুরের রামগঞ্জে সয়াবিন গুদামজাত করা পরিত্যাক্ত এক বাড়ি সিলগালা


প্রকাশের সময় : মার্চ ১৪, ২০২২, ১২:৪০ পূর্বাহ্ন / ১৯৫
লক্ষীপুরের রামগঞ্জে সয়াবিন গুদামজাত করা পরিত্যাক্ত এক বাড়ি সিলগালা

জয়নাল আবেদীন, লক্ষ্মীপুরঃ লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে সয়াবিন গুদামজাত করার দায়ে মা ভিলা নামে পরিত্যাক্ত এক বাড়ি সিলগালা করে দিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালত। রোববার (১৩ মার্চ) বিকালে রামগঞ্জ পৌরসভার জোড় কবর সংলগ্ন মা ভিলা নামের একটি পরিত্যাক্ত বাড়িতে সিলগালা করা হয়। এতে নের্তৃত্ব দেন উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মনিরা খাতুন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পরিত্যাক্ত মা ভিলা নামক বাড়িতে বিপুল পরিমাণ সয়াবিন তেল গুদামজাত করা হয়। এমন খবর পেয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতে অভিযানে ইউনিকর্ন ডিস্ট্রিভিউশন লিঃ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও তেল গুদামজাত করনে কোম্পানীর ম্যানেজার হেলাল উদ্দিন কোন কাগজপত্র ও ক্রয় বিক্রয়ের পরিসংখ্যান উপস্থাপন করতে পারেনি। পরে তাৎক্ষনিক ১০ হাজার টাকা জরিমানা করে তেলের গুদামে সিলগালা করার আদেশ দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- জেলা ডিএসবি পুলিশ অফিসার মোঃ ইব্রাহীম আজাদ ও রামগঞ্জ থানায় কর্মরত ডিএসবি পুলিশ মোঃ তাজুল ইসলাম, স্থানীয় কাউন্সিলর সুমন আখন্দ প্রমূখ।

মা ভিলার মালিক মৃত রাজ্জাক মিয়ার ভাগীনা মোঃ সায়মন হোসেন জানান, ফেব্রুয়ারী মাসে ১ম সাপ্তাহে চট্রগ্রামের এক ব্যবসায়ীকে প্রতিমাসে ৭হাজার ৫শত টাকা হারে আমি বাসা ভাড়া দিয়েছি। কিন্তু তেলের গুদামের বিষয়ে আমি কিছু জানিনা।
এ ব্যাপারে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা মনিরা খাতুন দৈনিক ইনফো বাংলা কে বলেন, কোম্পানীর সাইনবোর্ড না থাকা ও সঠিক কোন প্রয়োজনীয় প্রমানপত্র উপস্থাপন করতে না পারায় কোম্পানীর ম্যানেজার পরিচয়দানকারী হেলাল উদ্দিনকে ভোক্তা অভিকার আইনে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। আর জব্দকৃত তেলের গুদাম সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে। তদন্ত শেষে তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।