• ঢাকা
  • শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৪:০৩ অপরাহ্ন

যশোরের শার্শায় আমন ধানের চারা রোপণের কাজে ব‍্যস্ত সময় পার করছে চাষীরা


প্রকাশের সময় : অগাস্ট ৪, ২০২১, ৪:৪৬ অপরাহ্ন / ১৬৭
যশোরের শার্শায় আমন ধানের চারা রোপণের কাজে ব‍্যস্ত সময় পার করছে চাষীরা

মোঃ সোহাগ হোসেন,শার্শা, যশোরঃ যশোর শার্শা উপজেলার বেনাপোল, বাগআঁচড়া, কায়বা, সহ এ উপজেলার সকল কৃষকরা আমনের চারা রোপণে ব্যস্ত সময় পার করছে। এ অঞ্চলের কৃষকরা আমন, ইরি বোরো ধান উৎপাদনে অনেক অভিজ্ঞ। এ উপজেলার আবাদি জমির উর্বরতা অনেকটা বেশি। সে জন্যই বছরে ৩ বার ধানের চাষাবাদ করা যায়। পাশাপাশি রবিশস্যের ও আমের চাষাবাদ করা হয় এ অঞ্চলটিতে।

শ্রাবণের বৃষ্টির পানিতে কৃষকরা আমন ধানের চারা রোপণ কাজে ব্যস্ত সময় অতিক্রম করছে। এবার বর্ষা মৌসুমে প্রথমে খুব একটা ভালো বৃষ্টিপাত হতে দেখা যায়নি। সে কারণে অনেক চাষীকে আবাদি জমিতে বাড়তি পানি সেচ দিতে দেখা গেছে।অনেকে বিষ্টির অপেক্ষায় ধীরগতি করছিল আমন রোপনে। অবশেষে কাঙ্খিত বৃষ্টির দেখা মিলেছে এই উপজেলাতে। আর এই সুযোগ কাজে লাগিয়ে কৃষকরা দ্রুত আমনের চারা রোপণের কাজ শেষ করছে।

শার্শা উপজেলা কৃষি অফিস জানান, চলতি আমন মৌসুমে শার্শা উপজেলায় প্রায় ৬ হাজার ২শ’ হেক্টর জমিতে আমন ধানের চাষাবাদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এতে ধান উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে প্রায় ৩০ হাজার ১ শ’ ১৪ মেট্রিক টন। ইরি-বোরো মৌসুমে শার্শা উপজেলায় ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। তেমনি কৃষকরা ধানের ন্যায্য মূল্যও পেয়েছে। এতে কৃষকরা অনেকটা খুশি। এজন্য কৃষকরা সোনালী স্বপ্ন নিয়ে আমন ধানের চাষাবাদ শুরু করে দিয়েছে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জানান, কৃষকরা ধান উৎপাদনে অনেক অভিজ্ঞ তাই যথারীতি ভাবে আমন ধানের চাষাবাদ শুরু করে দিয়েছে। ইতোমধ্যেই আবাদি জমিতে আমন ধানের চারা রোপণ কাজ পুরোদমে শুরু হয়েছে।

শ্রাবণ মাসের মধ্যেই আমন ধানের চারা রোপণ কাজ সম্পন্ন হবে। এবারও আমন ধানের বাম্পার ফলনের লক্ষ্য নিয়ে আমরা মাঠ পর্যায়ে কার্যক্রম শুরু করেছি। আমন ধানের চাষাবাদে কৃষকদেরও অনেকটা আগ্রহ বেশি রয়েছে। এতে ব্যয় কম হলেও ধান উৎপাদন ভালো হয়।