• ঢাকা
  • সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০২:৩৫ অপরাহ্ন

মধ্যনগরে প্রতিপক্ষের হামলায় বিধবা ও ভূমিহীন নারীর ঘর ভাংচুর


প্রকাশের সময় : জুন ১৫, ২০২২, ১১:০৪ অপরাহ্ন / ১৪৭
মধ্যনগরে প্রতিপক্ষের হামলায় বিধবা ও ভূমিহীন নারীর ঘর ভাংচুর

মধ্যনগর প্রতিনিধিঃ মধ্যনগরে প্রতিপক্ষের লোকজন রিনা বেগম নামের এক অসহায় বিধবা ও ভূমিহীন নারীর ঘর ভেঙে ফেলায় বিপাকে পড়েছেন। ফলে রিনা বেগম পরিবারের লোকজ নিয়ে অন্যের বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছেন। রিনা বেগম এই দুরাবস্থা থেকে রেহাই পেতে ও একটি গৃহের দাবিতে বুধবার দুপুরে তাঁর দুই নাতিকে নিয়ে মধ্যনগর শহীদ মিনারে আমরণ অনশনে বসেন। বিষয়টি স্থানীয়দের মনে দাগ কেটেছে। খবর পেয়ে বিকেল ৫টার দিকে মধ্যনগর ইউপি চেয়ারম্যান সঞ্জিব রঞ্জন তালুকদার টিটু খবর পেয়ে শহীদ মিনার প্রাঙণে ছুটে আসেন এবং তিনি পানি পান করিয়ে রিনা বেগমের অনশণ ভাঙান। এ সময় ইউপি চেয়ারম্যান স্থানীয় প্রশাসনকে সাথে নিয়ে রিনা বেগমের সামাজিক নিরাপত্তা ও অন্যান্য সমস্যা দূরীকরণের আশ্বাস দেন। পরে ইউপি চেয়ারম্যান স্থানীয় গণ্যমান্যদের সাথে রিনা বেগমকে গ্রামে পাঠান।

মধ্যনগর সদর ইউনিয়নের তেলিপাড়া গ্রামের মৃত মারফত আলীর স্ত্রী রিনা বেগমের নিজের কোনো জায়গা জমি নেই। তিনি দীর্ঘ দিন ধরে ওই গ্রামে আমির হোসেন নামের এক মামাতো ভাইয়ের জায়গায় ঘর বানিয়ে বসবাস করে আসছেন। সম্প্রতি সেই জায়গার মালিকানা নিয়ে আমির হোসেনের সাথে স্থানীয় ফসর আলী নামের এক প্রতিবেশীর দ্ব›দ্ব শুরু হয়। গত ৯ জুন ফসর আলীর লোকজনের হামলায় রিনা বেগমের ঘর ভেঙ্গে যায়। ফলে রিনা বেগম হয়ে পড়েন গৃহহীন। তাই পরিবারের অন্য সদস্যদের নিয়ে আশ্রয় নেন অন্যের বাড়িতে।
মধ্যনগর ইউপি চেয়ারম্যান সঞ্জিব রঞ্জন তালুকদার টিটু বলেন, ‘স্থানীয় প্রশাসনকে সাথে নিয়ে ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে রিনা বেগমের নিরাপত্তা ও তার বাসস্থানের সুব্যবস্থা করে দেওয়ার ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। বিবদমান বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য স্থানীয়দের নিয়ে দ্রæত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।’
মধ্যনগর থানার ওসি মো. জাহিদুল হক বলেন, ‘যদি ওই নারীর নিরাপত্তা বিঘ্নিত হয় তাহলে সব রকম নিরাপত্তা দেওয়া হবে।