• ঢাকা
  • শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ০২:৪১ অপরাহ্ন

ভূমি মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে এর আওতাভুক্ত দপ্তর/সংস্থার ২০২১-২২ অর্থ বছরের এপিএ স্বাক্ষর


প্রকাশের সময় : জুন ২৭, ২০২১, ৬:৫৮ অপরাহ্ন / ১৫৩
ভূমি মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে এর আওতাভুক্ত দপ্তর/সংস্থার ২০২১-২২ অর্থ বছরের এপিএ স্বাক্ষর

মনিরুজ্জামান অপূর্ব,ঢাকা : আজ সচিবালয়ে ভূমি মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে সরকারের কর্মসম্পাদন ব্যবস্থাপনা পদ্ধতির আওতায় ভূমি মন্ত্রণালয় সঙ্গে এর আওতাভুক্ত দপ্তর/সংস্থার ২০২১-২০২২ অর্থবছরের বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি (এপিএ) স্বাক্ষর অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

ভূমি সচিব মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান পিএএ-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে ভূমি মন্ত্রণালয়ের আওতাভুক্ত দপ্তর/সংস্থার প্রধান সহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে ভূমি সংস্কার বোর্ডের চেয়ারম্যান মোঃ মোস্তফা কামাল, ভূমি আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান মোঃ মশিউর রহমান, ভূমি রেকর্ড ও জরিপ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মোঃ তসলীমুল ইসলাম, ভূমি প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের পরিচালক মো: আব্দুল হাই ও হিসাব নিয়ন্ত্রক (রাজস্ব) দপ্তরের হিসাব নিয়ন্ত্রক (রাজস্ব) মোঃ মশিউর রহমান নিজ-নিজ দপ্তর/সংস্থার পক্ষে ভূমি মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে এপিএ চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন। অপরপক্ষে, ভূমি সচিব ভূমি মন্ত্রণালয়ের পক্ষে স্বাক্ষর করেন।

এরপর, ২০২০-২১ অর্থ বছরের বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি সাফল্যের সাথে বাস্তবায়নের জন্য দপ্তর/সংস্থার পক্ষে ভূমি প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের পরিচালক মোঃ আব্দুল হাইকে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করেন ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান, পিএএ।

এছাড়া, বিভিন্ন উদ্ভাবনী উদ্যোগ বাস্তবায়ন করার স্বীকৃতি হিসেবে মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন দপ্তর/সংস্থাকে ‘ভূমি মন্ত্রণালয়ের উদ্ভাবনী প্রদর্শনী, ২০২১’ শীর্ষক সম্মাননা দেওয়া হয় একই অনুষ্ঠানে।

‘ভূমি মন্ত্রণালয়ের উদ্ভাবন প্রদর্শনী, ২০২১’-এ “ডিজিটাল রেকর্ড রুম” উদ্ভাবনটি প্রথম স্থান অধিকার করায় ভূমি মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব (প্রশাসন) ও চিফ ইনোভেশন অফিসার মোঃ আব্বাছ উদ্দিন, “অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর” উদ্ভাবনটি দ্বিতীয় স্থান অধিকার করায় ভূমি সংস্কার বোর্ডের সদস্য (প্রশাসন) ও চিফ ইনোভেশন অফিসার বেগম যাহিদা খানম ও “প্রশিক্ষণার্থীদের অনলাইন রেজিস্ট্রেশন” উদ্ভাবনটি তৃতীয় স্থান অধিকার করায় ভূমি প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের পরিচালক মো: আব্দুল হাই নিজ নিজ দপ্তর/সংস্থার পক্ষে ভূমি সচিবের কাছ থেকে সনদপত্র ও ক্রেস্ট গ্রহণ করেন।