• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১০:৪২ পূর্বাহ্ন

বৈশ্বিক সাম্য ও শান্তি রক্ষায় তরুণদের ভাবনা বিবেচনায় নেওয়া জরুরী


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ২৫, ২০২২, ৬:৪৭ অপরাহ্ন / ২০
বৈশ্বিক সাম্য ও শান্তি রক্ষায় তরুণদের ভাবনা বিবেচনায় নেওয়া জরুরী

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বৈশ্বিক সাম্য ও শান্তি রক্ষায় তরুণদের ভাবনা বিবেচনায় নেওয়া জরুরী বলে মনে করেন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মোঃ শাহ্ আজম। বৃহস্পতিবার রাজশাহী ইউনিভার্সিটি মডেল ইউনাইটেড নেশন অ্যাসোসিয়েশন (আরইউমান) এর ‘আরইউমান-২০২২’ সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যকালে এ ভাবনা ব্যক্ত করেন তিনি।

তিনি বলেন,রাষ্ট্রনীতি ও আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে বিভিন্ন সংকট এবং সমস্যা সম্পর্কে আজকের তরুণেরা যা ভাবছে তা বৈশ্বিক সাম্য ও শান্তি রক্ষার ক্ষেত্রে খুবই কার্যকরী হবে। বিশেষ করে বর্তমানে বিশ্বের যে সংকটগুলো চলছে যেমন, রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ, বাংলাদেশের সাথে মায়ানমারে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন এবং সারাবিশ্বে ব্যবসা, রাজনীতি ও অর্থনীতির ক্ষেত্রে দ্বি-পক্ষীয় এবং বহু-পক্ষীয় যে সমস্ত সংকট বিদ্যমান সেসব এবং বিশ্বশান্তি প্রতিষ্ঠার ব্যাপারেও তরুণদের নিজস্ব ভাবনা আছে। তরুণদের মতামতকে গুরুত্ব দিয়ে আগামীতে শান্তিপূর্ণ বিশ্ব গড়া সম্ভব।

আরইউমান সংঘ সম্পর্কে তিনি বলেন,বাংলাদেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো আগামী দিনের বাংলাদেশের অর্থনীতি, রাজনীতি ও সামাজিক উন্নয়নের জন্য জনসম্পদ তৈরি করছে। তবে আন্তর্জাতিক রাজনীতি, কূটনীতি, বাংলাদেশের পররাষ্ট্রনীতি অনুযায়ী বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের পক্ষে প্রচারণা এবং বাংলাদেশের পক্ষ থেকে বিভিন্ন এজেন্সির সাথে নেগোসিয়েশন ও চুক্তি প্রভৃতি কর্মকাণ্ড সুচারুরূপে সম্পাদন করার জন্য শিক্ষার্থীদের দক্ষ করে গড়ে তোলা এবং সুযোগ্য ডিপ্লোম্যাট তৈরি এখন সময়ের দাবি। এক্ষেত্রে ছায়া সংসদ খুবই কার্যকর বলে আমি বিশ্বাস করি। মডেল ইউনাইটেড নেশন শুধুমাত্র সহশিক্ষামূলক কার্যক্রম নয়, এটি আমাদের তরুণ শিক্ষার্থীদের কূটনৈতিক হিসেবে গড়ার ক্ষেত্রে উৎসাহ দেয় এবং কূটনীতির বিভিন্ন কৌশল চর্চা করার সুযোগ তৈরি করে।