• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১০:১৪ অপরাহ্ন

গ্রেফতার আতঙ্কে সীমান্তের বাসিন্দারা : নিরাপত্তার দাবিতে মানববন্ধন


প্রকাশের সময় : জুলাই ২২, ২০২২, ৯:৫৪ অপরাহ্ন / ১৪৬
গ্রেফতার আতঙ্কে সীমান্তের বাসিন্দারা : নিরাপত্তার দাবিতে মানববন্ধন

এস এম রুবেল, চাঁপাইনবাবগঞ্জঃ চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভারতীয় সীমান্তবর্তী এলাকার বাসিন্দারা গ্রেফতারের আতঙ্কে দিন পার করছেন। মাদকসহ মিথ্যা ও সাজানো মামলা থেকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে ও নিরাপত্তা চেয়ে মানববন্ধন করেছে শিবগঞ্জ উপজেলার মনাকষা ইউনিয়নের ১০ গ্রামের বাসিন্দারা। বুধবার (২০ জুলাই) বিকেলে মনাকষা ইউনিয়নের সাহাপাড়া বাজারে এই মানববন্ধনের আয়োজন করে স্থানীয় গ্রামবাসী।

এ সময় মানববন্ধনে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মিথ্যা ও সাজানো মাদক দিয়ে মনাকষা ইউনিয়নের মুন্সিপাড়া গ্রামের মৃত তৈমুর রহমানের ছেলে কৃষক মুনজুর রহমানকে (৫৪) আটকের প্রতিবাদ জানায় বক্তারা। মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, গত মঙ্গলবার (১৯ জুলাই) রাত আনুমানিক ১টার দিকে কৃষক ও খামারী মুনজুরকে তার বাড়ি থেকে আটক করে বিজিবি। আটকের সময় কিছু না পেলেও পরে গণমাধ্যমে মাদকদ্রব্য দিয়ে আটক দেখায় বিজিবি। অথচ সে একজন নিরপরাধ ও খেটে-খাওয়া দিনমজুর শ্রেণীর মানুষ।

মানববন্ধনে বক্তারা আরও বলেন, নিরপরাধ মানুষ মুনজুর আটকের পর মনাকষা ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী ১০টি গ্রামের মানুষজন গ্রেফতার আতঙ্কে ভুগছেন। রাতের বেলা পুরুষরা বাড়িতে থাকতে পারছে না। কারন যেকোন মূহুর্তে যে কাউকে মাদকসহ আটক দেখিয়ে নিয়ে যেতে পারে বিজিবি। গ্রামের কিছু মাদককারবারী এই কাজ করছে বলে তাদের অভিযোগ। সীমান্ত দিয়ে মাদক চোরাচালানে বাধা দেয়ায় গ্রামবাসীকে আতঙ্কে রাখতে বিজিবির সোর্স হিসেবে কাজ করা মাদককারবারীরা এমন কাজ করছে বলে দাবি বক্তাদের।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা মকবুল হোসেন, স্থানীয় বাসিন্দা রিপন আলী, মোরশালিন আলী, গৃহবধু আম্বিয়া খাতুন, মো. সোহরাব আলী। মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন, মনাকষা ইউনিয়নের মুন্সিপাড়া, তারাপুর, ছয়ঘরিয়া, সাহাপাড়া, মড়লপাড়া, শ্যামপুর, পন্ডিতপাড়া, ভবানীপুর, চটকপাড়া, ঠুঠাপাড়াসহ ১০টি গ্রামের বিভিন্ন বয়সী ও শ্রেনী পেশার জনসাধারণ।

এ বিষয়ে ৫৩ বিজিবি ব্যাটলিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল নাহিদ হোসেন মুঠোফোনে বলেন, গ্রেফতারকৃত মুনজুর রহমান দীর্ঘ দিন ধরে মাদক ব্যবসা করছেন, এমন তথ্যের ভিত্তিতে তার বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করে বিজিবির একটি দল। এসময় তার বাড়ি থেকে মাদকদ্রব্যগুলো উদ্ধার করে বিজিবি। নিরপরাধ কোন ব্যক্তিকে আটক করার সুযোগ নেই। গ্রেফতারকৃত মুনজুর রহমানের নিজেকে আদালতে নিরাপরাধ প্রমাণ করার সুযোগ রয়েছে।