• ঢাকা
  • শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৩:০৪ অপরাহ্ন

গোপালগঞ্জ পৌরনির্বাচনে ১ কাউন্সিলরের মনোনয়ন বাতিল, অন্য সকল প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা কে এম সাইফুর রহমান, গোপালগঞ্জঃ


প্রকাশের সময় : মে ২০, ২০২২, ১:৩২ পূর্বাহ্ন / ৫৭
গোপালগঞ্জ পৌরনির্বাচনে ১ কাউন্সিলরের মনোনয়ন বাতিল, অন্য সকল প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা  কে এম সাইফুর রহমান, গোপালগঞ্জঃ

কে এম সাইফুর রহমান, গোপালগঞ্জঃ আগামী ১৫ জুন অনুষ্ঠিতব্য গোপালগঞ্জ পৌরনির্বাচনকে সামনে রেখে মনোনয়ন পত্র যাচাই-বাছাই শেষে সবুজ শেখ নামের ৪ নং ওয়ার্ডের একজন সাধারণ কাউন্সিলরের মনোনয়ন পত্র বিধি মোতাবেক বয়স কম হওয়ায় তা বাতিল ঘোষণা করে অন্য সকল পদে জমা দেওয়া প্রার্থীদের মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করেছেন ফরিদপুরের সিনিয়র জেলা নির্বাচন অফিসার ও গোপালগঞ্জ পৌরসভার সাধারণ নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান।

আজ বৃহস্পতিবার (১৯ মে) দুপুরে গোপালগঞ্জ জেলা নির্বাচন কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে প্রার্থীদের উপস্থিতিতে। তিনি এ ঘোষণা দেন।

এ সময় গোপালগঞ্জ জেলা নির্বাচন অফিসার মুহাম্মদ ফয়জুল মোল্লা, সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা রাসেদুল ইসলাম সহ অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষে গোপালগঞ্জ পৌর নির্বাচন-২০২২ -এ মেয়র পদে মোট ১১ জন, সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে মোট ২১ জন এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে মোট ৬৭ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।

এছাড়া জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফয়জুল মোল্যা জানান, মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ দিনে মুকসুদপুর পৌরসভায় মেয়র পদে ৬ জন, কউন্সিলর পদে ৩৪ জন ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ১০ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র জমা দেন। মনোনয়ন পত্র যাচাই বাছাই-এ মেয়র পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. আসাদুল ইসলাম, সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর প্রার্থী তাহমিনা বেগম এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে ২নং ওয়ার্ডের শরিফুল ইসলাম, ৩নং ওয়ার্ডের বল্লভ কুন্ডু ও ৬নং ওয়ার্ডের মো. মিজান মোল্লার মনোনয়ন পত্র বাতিল হয়। ফলে মুকসুদপর পৌরসভায় মেয়র পদে ৫ জন, কাউন্সিলর পদে ৩১ জন ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ৯ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষনা দেন।

নির্বাচনে প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ আগামী ২৬ মে। প্রতীক বরাদ্দ আগামী ২৭ মে এবং ভোট গ্রহণ
ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) এর মাধ্যমে আগামী ১৫ জুন (বুধবার) অনুষ্ঠিত হবে।

আগামী ১৫ জুন গোপালগঞ্জ ও মুকসুদপুরে একযোগে অনুষ্ঠিতব্য পৌর নির্বাচন উৎসবমুখর পরিবেশে অবাধ, নিরপেক্ষ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন করতে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন বদ্ধপরিকর।