• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৪:০৭ পূর্বাহ্ন

গোপালগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে মামলা


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ৫, ২০২৩, ১২:৩৭ পূর্বাহ্ন / ২২
গোপালগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক, গোপালগঞ্জঃ গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার সাহাপুর ইউনিয়নে চিরনজিৎ হিরাকে হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করে কানকেটে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে মামলা দেওয়ার আভিযোগ উঠেছে।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার সাহাপুর ইউনিয়নে বাড়ইকান্দি গ্রামের রমনী হিরার ছেলে চিরনজিৎ হিরাকে হারান হিরার ছেলে কৌশিক হিরা গত ২০ /১১/২৩ ইং তারিখের বিকাল ৪ টার দিকে হাসপাতালের ভর্তি করে ।
পরে জরুরী বিভাগে নিয়ে গিয়ে কর্তব্যরত চিকিৎসককে দেখায়। পরে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে মামলা দেওয়ার জন্য গোপালগঞ্জ সদর থানা বরাবর কৌশিক বাদী হয়ে ১১ জনকে আসামী করে একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেছেন।

এ বিষয় পিনাকি হিরা জানান,এই মামলার বিষয়ে আমি কিছুই জানিনা , তবে চিরনজিৎ হিরার কোন রক্তাক্তা আঘাতের চিন্য ছিল না । তারা নিজেরা কান টেকে আমাদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়েছে যাহা মিথ্য ও বানোয়াটও বটে। আমি এই ঘটনার সঠিক তদন্তের দাবী করছি।

এ বিষয়ে স্থানীয় পল্লী চিকিৎক অনিল বিশ্বাস জানান, চিরনজিৎ হিরার সামান্য আঘাতের চিন্য পাওয়া যায়। তবে কোন কাটা ছেড়ার চিন্য পাওয়া যায়নি।তবে আমি একটি ব্যাথার ইনজেকশন দিয়ে দিয়েছি ।

এ বিষয়ে পুলিশের তদন্ত কর্মকর্তা এস আই লিয়াকত হোসেন জানান, কৌশিকের আবেদন কৃত একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত চলছে । তবে স্থানীয় চিকিৎক অনিল বিশ্বাস জানান, চিরনজিৎ হিরার কোন রক্তাক্ত আঘাতের চিন্য পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য যে, গত ১৬/১১/২৩ইং তারিখে কবিতা বলের বাড়ী থেকে কৌশিক প্রায় ৫৪ টির বেশি হাস চুরি করে, বিষয়টি জানাজানি হলে পরে। ২০/১১/২৩ ইং-তারিখে হাস চুরি কেন্দ্রকরে উভয় পক্ষ কিল ঘুষির মধ্য দিয়ে সংর্ঘষে জড়িয়ে পড়ে। পরে গ্রাম্য দলীয় বিরোধের জের ধরে বিষটি ভিন্ন ভাবে উপস্থাপন করে মামলা দায়ের করেন।