• ঢাকা
  • রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০১:৪২ পূর্বাহ্ন

গোপালগঞ্জে ইউপি চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন


প্রকাশের সময় : অগাস্ট ২৮, ২০২১, ১২:২৯ পূর্বাহ্ন / ১৫৫
গোপালগঞ্জে ইউপি চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন

নিজস্ব প্রতিবেদক,গোপালগঞ্জঃ  গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার গোবরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুর রহমান চৌধুরী টুটুলকে নিয়ে উদ্দেশ্য প্রণোদিত সংবাদ প্রকাশ করায় সংবাদ সম্মেলন করেছন তিনি।

শুক্রবার বেলা ১১টায় গোবরা ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন পাঠাগারে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলন শফিকুর রহমান চৌধূরী টুটুল বলেন, এ জেড আমিনুজ্জামান রিপন নামে গোপালগঞ্জের একজন সাংবাদিক গত ২৬ আগষ্ট “দৈনিক শিরীণ” পত্রিকায় একটা সংবাদ প্রকাশ করেছেন। সংবাদটিতে লিখেছেন, আমি নাকি অভিনব কায়দায় ইডিসিএল, বশেমুরবিপ্রবি ও সরকারি পরিসংখ্যান অফিসে ডাটা এন্ট্রি অফিসার পদে নিয়োগের কথা বলে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছি। সেই টাকা দিয়ে আলিশান বাড়ি, বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে কোটি টাকার জমি এবং মেয়েকে ইউরোপ মহাদেশে লেখাপড়া করাচ্ছি।

আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে বিরোধী পক্ষ উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে আমার বিরুদ্ধে এধরনের পাতানো এবং একতরফা সংবাদ প্রকাশ করিয়েছেন বলে অভিযোগ করেন তিনি।

তিনি বলেন, চাকুরী দেয়ার কথা বলে টাকা নিয়েছি বলে সংবাদটিতে যাদের বরাত দিয়েছেন, তারা কেউই আমার বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ আনেনি। বক্তব্য দেননি এমন লোকের বক্তব্যও সংবাদটিতে প্রকাশ পেয়েছে। তাছাড়া সংবাদটিতে আমাকে অভিযুক্ত করা হলেও আমার কোন বক্তব্য নেয়া হয়নি।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত নান্টু বিশ্বাস বলেন, আমার সাথে কোন সাংবাদিকই এ ব্যাপারে কথা বলেনি। অথচ সংবাদে আমার বক্তব্য দিয়েছে। তবে সংবাদ প্রকাশের পর এমরান চৌধুরী সুমন নামের একজনকে পাঠিয়ে আমার নিকট থেকে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেয়।

নিজের সম্পর্কে তিনি বলেন, আমি হিসাব বিজ্ঞানে মাস্টার্স এবং এমবিএ। আমি সিএ কোর্স সমাপ্তাকারী এবং জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সনদ প্রাপ্ত একজন আয়কর আইনজীবী। আমি শেয়ার মার্কেট নিয়ে তিনটি কোর্স সমাপ্ত করেছি এবং কাজী ফিরোজ রশীদ সিকিউরিটিজ এর পল্টন বুথের দ্বায়িত্বে আছি। চেয়রম্যানীকে আমি পেশা হিসেবে নেইনি, এটা আমার নেশা। এখান থেকে সাধারণ মানুষের সেবা আর অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো যায়। মানবিক সেবা দেয়ার জন্য এলাকার সমমনা কিছু মানবিক মানুষকে নিয়ে গঠন করা হয়েছে সূর্য শিশির ফাউন্ডেশন, এই ফাউন্ডেশনের মাধমে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের প্রতিবছর থাকা – খাওয়ার ব্যবস্থা করা, পিছিয়ে পড়া ও দরিদ্র শিক্ষার্থীদেরকে শিক্ষা উপকরণ প্রদান, কোচিং করানো, প্রতিবছর রমজান মাসে ভ্রাম্যমান মুসল্লীদের জন্য মাসব্যাপী ইফতারের ব্যবস্থা করা, অসহায় ও কর্মহীন মানুষকে সহায়তা প্রদান, করোনা দুর্যোগ মোকাবেলায় সূর্য শিশির ফাউন্ডেশনের স্বেচ্ছাসেবকদের দিয়ে ২টি অক্সিজেন সিলিন্ডার ও নিজের ব্যবহারের গাড়ি দিয়ে গোবরা ইউনিয়ন সহ পার্শ্ববর্তী এলাকার করোনা রোগীদের সেবাদান, প্রায় ৬’শ ব্লাড ডোনার নিয়ে চলছে নিয়মিত রক্তদান প্রভৃতি কার্যক্রমের মাধ্যমে মানুষের জন্য কাজ করছি আমরা, অথচ শুধুমাত্র হীন স্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য এহেন নোংরা খেলায় মেতেছে আমার বিরুদ্ধ পক্ষ, আমি আপনাদের বিবেকের কাছে এ ঘটনার বিচার দাবি করছি ।