• ঢাকা
  • বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ১০:৩১ অপরাহ্ন

খুলনার খালিশপুরে অপহৃত কন্যাকে উদ্ধার ও অপহরণকারীদের গ্রেফতারের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত


প্রকাশের সময় : মার্চ ২৯, ২০২৩, ৫:৩০ অপরাহ্ন / ৭৬
খুলনার খালিশপুরে অপহৃত কন্যাকে উদ্ধার ও অপহরণকারীদের গ্রেফতারের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত

খুলনা অফিসঃ খুলনার খালিশপুরে অপহৃত কন্যাকে উদ্ধার ও অপহরণকারীদের গ্রেফতারের দাবীতে বুধবার বেলা সাড়ে ১১ টায় খুলনা প্রেসক্লাবের হুমায়ুন কবির বালু মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত সাংবাদিকের সামনে  লিখিত বক্তব্য পাঠ করাকালীন ভুক্তভোগী কন্যা সন্তানের মা সুলতানা বেগম জানান, খালিশপুর থানাধীন ১নং নেভী চেকপোস্ট হালদার পাড়া (জাহাঙ্গিরের বাড়ির) ভারাটিয়া হিসেবে দীর্ঘদিন ঘরে বসবাস করে আসছেন। তার একমাত্র কন্যা মারিয়া মাহাবুব সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের সিভিল
ডিপার্টমেন্টের চতুর্থ সেমিস্টারের ছাত্রী। গত ২২ জানুয়ারি ২০২৩ বিকাল আনুমানিক ৫ টায় কলেজ থেকে বাড়ি ফেরার পথে কয়েকজন দুষ্কৃতিকারী কালো রং এর একটি মাইক্রোবাসে জোর করে তুলে নিয়ে যায়।

এ ঘটনায় কন্যার মা বাদি হয়ে গত ২৩ জানুয়ারি ২০২৩ জেলা খুলনার বিজ্ঞ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ ট্রাইব্যুনাল নং-০৩ আদালতে খালিশপুর থানার শহীদ শেখ আবু নাসের
স্টেডিয়ামের পাশের গলির বাসিন্দা নান্টু শেখের পুত্র শাকিল শেখ, রায়ের মহল মল্লিক বাড়ির কল্লাস মল্লিকের পুত্র জুইন মল্লিক, সোনাডাঙ্গা বাসস্টান্ড সংলগ্ন মিজান নগর আইডিয়াল কলেজের সামনে মাস্টারের বাড়ির মোঃ অহিদুলের পুত্র হৃদয় এবং সোনাডাঙ্গার আল আমিন মহল্লা ৩য় গলির (মাইকেল মন্ডলের বাড়ির ভাড়াটিয়া) সাইদুল ইসলাম সাইদের কন্যা বৃষ্টি বেগমকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন। যার নং-১৬/২৩। মামলা করার পর বিজ্ঞ আদালত খালিশপুর থানাকে তদন্তপূর্বক আসামীদের গ্রেফতার করার নির্দেশ প্রদান করেন। আসামীদের মধ্যে ৪নং আসামী বৃষ্টি বেগমকে গ্রেফতার পূর্বক জেলে প্রেরণ করা হয়।

২ মাসেরও অধিক সময় অতিবাহিত হলেও বাকি আসামীদের পুলিশ গ্রেফতার করতে পারেনি। আসামীদের গ্রেফতারের দাবিতে গত ১২ ফেব্রুয়ারি তিনি  পুলিশ কমিশনার বরাবর একটি আবেদন করলেও কোন ফলাফল পাওয়া যায়নি। আসামীরা নানাভাবে মামলা তুলে নিতে তাদের  হুমকি প্রদান করছে। এমনকি মামলা তুলে না নিলে তাকেও অপহরণের হুমকি প্রদান করছে।

সুলতানা বেগম এক পর্যায়ে অভিযোগ করে বলেন,, তার কন্যা মারিয়া মাহাবুব কোন অবস্থায় আছে তা  আজও পুলিশের মাধ্যমে জানতে পারেননি। তিনি ও তার  পরিবারের সদস্যরা অব্যাহত হুমকির ভয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন।অনতিবিলম্বে তার কন্যা মারিয়া মাহাবুব কে উদ্ধার করে এবং আসামীদের গ্রেফতার ও আইনের আওতায় আনার জোর দাবি জানান।