শিরোনাম

শিশুকাল থেকেই সততার চর্চা করাতে হবে : বিদ্যানিকেতনে বিভাগীয় কমিশনার এম বজলুল করিম চৌধুরী

bidda ১নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি: দেশের উন্নয়নের ক্ষেত্রে দূর্নীতি একটি বড় সমস্যা।দেশকে দূর্ণীতি মুক্ত করতে সরকার কঠোর অবস্থান নিয়েছেন। দূর্নীতির জন্য রয়েছে কঠোর আইনি ব্যাবস্থা। আগামী প্রজন্মকে দূর্নীতি মুক্ত করতে শিশুকাল থেকেই সততার চর্চা করাতে হবে। সততার চর্চা থাকলে দূর্নীতির প্রতি ঘৃনা আসবে। তাই শিশুকাল থেকেই সততার ব্যাপারে যত্ন নিতে হবে অবিভাবকদের। পরিবার ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকেই দূর্নীতির বিরুদ্ধে তৈরি করতে হবে আগামী প্রজন্মকে। এ দায়িত্ব আমাদের সকলের। নারায়ণগঞ্জরে বিদ্যানিকেতন হাই স্কুল প্রাঙ্গনে বিদ্যালয়ের সততা স্টোর ও মিলনায়তনের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন অনুষ্ঠানের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথীর বক্তৃতায় ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার এম বজলুল করিম চৌধুরী।
আলোচনা সভায় বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদের সভাপতি দেশের বিশিষ্ট সাংবাদিক কাশেম হুমায়ূনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথীর বক্তৃতা করেন জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়া, পুলিশ সুপার মঈনুল হক। সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) জসিম হায়দার, সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) তাসনিম জেবিন বিনতে শেখ, বিদ্যানিকেতন হাই স্কুলের পরিচালনা পরিষদের সদস্য,শিক্ষক, অভিভাবক ও শিক্ষার্থীরা।
জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়া বলেন, ‘কোমলমতি শিশুদের সঠিক পথে রাখার জন্য দায়িত্ব আমাদের। ছোট থেকে এ সততার ব্যবহার শিখতে হবে। পরিবারের বড় দায়িত্ব সন্তানদের মানুষ করা।
জেলা পুলিশ সুপার মঈনুল হক বলেন, ‘নিজে সর্বাঙ্গে সত্য থাকতে হবে। নিজের কাছে সত্য হতে হবে। আমরা এমন কোন কাজ না করি যাতে  অন্যের ক্ষতি হয়। এমন কাজ করি যাতে সবার উপকার হয় এবং দেশের জন্য মঙ্গল হয়।’
আলোচনা সভার পূর্বে দুর্নীতি দমন কমিশনের সহযোগিতায় বিদ্যানিকেতন হাইস্কুলে সততা স্টোর ও মিলনায়তনের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন করা হয়। সততা স্টোরে শিক্ষার্থীদের প্রয়োজনীয় শিক্ষা সামগ্রী এবং খাবার থাকবে। প্রত্যেকটি জিনিসের মূল্য লিখা থাকবে এবং সেখানে একটি ক্যাশবক্স থাকবে। ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের প্রয়োজনীয় জিনিস সংগ্রহ করে সঠিক মূল্য ক্যাশবক্সে প্রদান করবে। টাকা গ্রহণের জন্য কোন লোক থাকবেনা। এ ক্ষেত্রে সততা বজায় রাখার জন্য ছাত্রছাত্রীদের মনিটরিং করবে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। ##

Be Sociable, Share!
বিভাগ: জেলার খবর, পড়া-লেখা

এখনো কোন মন্তব্য করা হয়নি.

মন্তব্য করুন

*